শনিবার, ২৫ জুন ২০২২, ০৮:৩০ পূর্বাহ্ন
ঘোষনা
হাতিয়ায় ফরেস্টের বাগান থেকে আগ্নেয় অস্ত্র উদ্ধার। গাইবান্ধা ফুলছ‌রি‌ উপজেলায় বন‌্যা ক্ষতিগ্রস্থ ২ হাজার প‌রিবার‌কে ত্রাণ বিতরণ নদী বাঁধের কাজ করতে গিয়ে সুপারভাইজারের মৃত্যু। সিরাজগঞ্জের কালিয়া হরিপুর ইউনিয়নের যমুনা নদীর তীরবর্তী নিম্নাঞ্চল বন্যাকবলিতদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ  উন্নত মানসিকতা সততা, দেশপ্রেম, সুশিক্ষাই পারে দেশকে সমৃদ্ধি করতে  এস এম শাহজাদা (এমপি) রাজশাহীর প্রতিটা বাজারে সবজি ও মাছের দামে আগুন সিরাজগঞ্জ যমুনানদীর দূর্গম চরাঞ্চল কাওয়াকোলা ইউনিয়নে বন্যাকবলিতদের মাঝে ত্রাণ বিতরণ  সাপাহারের ৩টন আম গেলো নেপাল ও কুয়েতে গোদাগাড়ীতে ৫০ (পঞ্চাশ) গ্রাম হেরোইন সহ ০২ জন আসামী গ্রেফতার । সিরাজগঞ্জ সদরে তিন ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

এইবার নোয়াখালী জেলার শ্রেষ্ঠ ওসি নির্বাচিত হলেন হাতিয়া থানা ওসি।

জাকের হোসেন
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৯ জানুয়ারী, ২০২২
  • ৭২ বার পঠিত

নোয়াখালী জেলায় প্রশংসায় ভাসছেন হাতিয়া থানা ওসি আনোয়ারুল ইসলাম।ডিসেম্বর মাসে নোয়াখালী জেলার শ্রেষ্ঠ অফিসার ইনচার্জ নির্বাচিত হলেন হাতিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মো আনোয়ারুল ইসলাম।তিনি শ্রেষ্ঠ ওসি নির্বাচিত হওয়ায় নোয়াখালীর পুলিশ সুপার প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান।

২৮/০৭/২০২১ইং সালে হাতিয়া থানা ওসি আনোয়ারুল ইসলাম যোগদানের পর পাল্টে গেছে হাতিয়া থানার আইন-শৃঙ্খলার চিত্র।তিনি হাতিয়া থানায় যোগদান করার পর মাদক ও সন্ত্রাসের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেন। মাদক বিরোধী এই অভিযানে তিনি শুধু ইয়াবা ব্যবসায়ীদের গ্রেফতার করেই চুপ থাকেননি।প্রতি শুক্রবার হাতিয়া উপজেলার প্রত্যেকটি মসজিদে জুম্মার নামাজের খুৎবার পর সামাজিক সচেতনতা বৃৃদ্ধির লক্ষ্যে মুসল্লিদের মধ্যে সচেতনতামূলক বক্তব্য দেন। ওসি আনোয়ারুল ইসলাম যোগদানের পর এখন পর্যন্ত হাতিয়া থানায় সফলতার বহরে সবচেয়ে বড় সফলতা,বর্তমানে চলমান করোনা পরিস্থিতিতে কঠোর ভূমিকা রেখেছেন তিনি।

লকডাউন বাস্তবায়নে ও শারীরিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে যে সব অভিযান ক্রমান্বয়ে করে যাচ্ছেন, তা বর্তমানে অনলাইনে ভাইরাল হয়ে গেছে। জনমনে প্রশংসা কুড়িয়েছে। হাতিয়া জনগন বলেন, হাতিয়া থানার ওসিকে যে কোন প্রয়োজনে ফোন করলে তিনি সুন্দরভাবে সম্ভোধন করে কথা বলেন এবং যে কোন বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা গ্রহণ করেন।

হাতিয়া থানা ওসি ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, আমার প্রথম কাজ হলো পুলিশ সাধারণ মানুষের বন্ধু, তা প্রমাণ করা। এ কাজটি আমি করি শিষ্টের লালন, দুষ্টের দমন এই নীতিতে। আমি বিশ্বাস করি অপরাধী কোনো দলের নয়। একজন ওসি হিসেবে জনগনকে যে সেবা দেওয়ার কথা আমি শুধু আমার পেশাদারিত্ব থেকে সেটাই করছি।

তবে মাদক, সন্ত্রাস, জঙ্গীবাদ সহ যে কোন অপকর্মের বিরুদ্ধে হাতিয়া থানায় এই কর্মকাণ্ড চলবে। হাতিয়া থানা এলাকায় কোনো ইয়াবা ব্যবসায়ী ও সন্ত্রাসীর স্থান হবে না। আমার অনুপ্রেরণার জায়গা হলো আমাদের নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..
এই পত্রিকার সকল সংবাদ, ছবি ও ভিডিও স্বত্ত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ দৈনিক মাতৃজগত    
কারিগরি সহযোগিতায়ঃ Bangla Webs
banglawebs999991