মঙ্গলবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১১:১৯ অপরাহ্ন
ঘোষনা
ইন্ডাস্ট্রিয়াল পুলিশ-৫, ময়মনসিংহ ইউনিটে পুলিশের বিভাগীয় অধস্তন পুলিশ সদস্যদের পদোন্নতি পরীক্ষা-২০২২খ্রিঃ এর ক্যাম্প প্রশিক্ষণ মূল্যায়ন সম্পন্নকরণ ।                                                                             সিরাজগঞ্জে বিশ্ব পর্যটন দিবস উদযাপন উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত।  শাহজাদপুরে শিশু সালামকে অপহরণের পর হত্যার দায়ে যুবকের মত্যুদণ্ড। শ্রীপুরে রানার লাশ রাস্তায় রেখে মানববন্ধন (২৪ ঘন্টার মধ্যে আসামি গ্রেফতারের দাবি)। গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জে বাঁশ কাটতে গিয়ে  বিদ্যুৎস্পষ্টে এক ব্যক্তির মৃত্যু। চাঁদপুরে অবিবাহিত আওয়ামীলীগ নেতা রফিকুল্লাহ হত্যাকারী ১৬ বছরের অমিত দাশ অত:পর অমিতের আত্মহত্যা? কলাপাড়ায় সড়কেই মহিষের আবসস্থল মানুষের দুর্ভোগ চরমে। নেত্রকোনা দুর্গাপুরে ৩ দিন ব্যাপী কৃষি মেলা শুরু  নওগাঁয় ১২০ হেক্টর জমিতে শিম চাষ অধিক লাভের আশা চাষিদের একাধিক মামলার আসামী ঝালকাঠির বিতর্কিত মোল্লা সাওন জেলহাজতে

কর্ণহার থানার এসআই নাদিমের বিরুদ্ধে পুকুর খনন বানিজ্যের অভিযোগ

মারুফ আহমেদ 
  • আপডেট টাইম : রবিবার, ৫ জুন, ২০২২
  • ৭৬ বার পঠিত

স্টাফ রিপোর্টারঃ

রাজশাহীতে আরএমপি’র বহুল আলোচিত ৫০ লাখ টাকা চাঁদাবাজি মামলায় অভিযুক্ত বোয়ালিয়া থানার সেই এস আই নাদিমের বিরুদ্ধে এবার পুকুর খনন বানিজ্যের অভিযোগ উঠেছে।

জানা গেছে, বোয়ালিয়া থানায় থাকা কালে এস আই নাদিম শিরোইল এলাকার একজন ব্যবসায়ীর কাছে ৫০ লাখ টাকা চাঁদা চান। সেই ঘটনায় ঐ ব্যবসায়ী আদালতে তার বিরুদ্ধে মামলাও করেন। যা বর্তমানে পিবিআই তদন্ত করছেন। এ ঘটনায় তাকে বদলি করা হয় আরএমপি’র কর্ণহার থানায়। সেখানে দ্বায়িত্ব পান সেকেন্ড অফিসারের। এরপর বেপরোয়া হয়ে উঠেন তিনি। এস আই শাহিন ও এ এস আই সিরাজুল ইসলামকে নিয়ে গড়ে তুলেন সিভিল টিম। তাদের মাধ্যমে বিভিন্ন লোকজনকে ধরে থানায় নিয়ে চলে দেনদরবার। পর্যাপ্ত চাহিদা পূর্ণ হলে তাদের ছেড়ে দেওয়া হয়, অন্যথায় দেওয়া হয় মামলা।

এরই ধারাবাহিকতায় গত ৪ জুন পুকুর খননের অপরাধে নয়ন ও জাহাঙ্গীর নামে দুজনকে ধরে থানায় নিয়ে আসে এস আই শাহিন ও এ এস আই সিরাজুল ইসলাম। এরপর তাদের কাছ থেকে ৩০ হাজার টাকা নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়। যদিও পুকুর খনন বন্ধে ব্যবস্থা নিবেন ইউএনও অথবা এসি ল্যান্ড।

এদিকে বিশ্বস্ত সুত্র নিশ্চিত করেন, লেবু নামে এক পুলিশ সদস্যকে মারধর করেছেন এস আই নাদিম। সে বিষয়ে লিখিত অভিযোগ জানিয়ে উদ্ধর্তনদের কাছে বিচার চেয়েছেন লেবু।

এ বিষয়ে জানতে এস আই নাদিমকে ফোন দিলে তিনি বলেন, পুকুর খনন বন্ধ করতেই নয়ন ও জাহাঙ্গীরকে থানায় ডেকে আনা হয়েছিলো। টাকা পয়সা নেওয়া ঘটনা সত্য নয়। তাদের পুকুর খনন কাজ বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। তিনি আরও বলেন পুকুর খনন বন্ধ করায় একটি মহল মিথ্যা তথ্য প্রচার করছে। চাঁদাবাজি অভিযোগে আদালতে করা মামলাটি তদন্তাধীন আছে। পুলিশ সদস্য লেবুর বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন, এত কথা তো ফোনে বলা যায় না, একদিন আসেন চা খেতে খেতে সব কথা বলা যাবে।

এ বিষয়ে কর্ণহার থানার ওসি ঈসমাইল হোসেন বলেন, আমি রাজশাহীর বাহিরে ঢাকায় আছি। যতদুর জানি পুকুর খনন বন্ধ রাখতে তাদের থানায় ডেকে নিষেধ করা হয়েছে। এর বাহিরে কিছু বলতে পারবো না।

নিউজটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এ জাতীয় আরো খবর..
এই পত্রিকার সকল সংবাদ, ছবি ও ভিডিও স্বত্ত্ব সংরক্ষিত © ২০২১ দৈনিক মাতৃজগত    
কারিগরি সহযোগিতায়ঃ Bangla Webs
banglawebs999991